শুক্রবার, ১৪ই নভেম্বর, ২০১৯ ইং, ১লা অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ


কেরানীগঞ্জ মডেল থানা ও দক্ষিণ থানার উদ্যোগে মতবিনিময় সভা

প্রকাশিত : ৩০ জুলাই, ২০১৯ নিউজটি পড়া হইছে 5590 বার

কেরানীগঞ্জ মডেল থানা ও দক্ষিণ থানার উদ্যোগে মতবিনিময় সভা

বুড়িগঙ্গা নিউজ ডেস্ক   

পবিত্র ঈদুল আজহা উপলক্ষে গরুর হাটের ইজারাদার, পরিবহন শ্রমিক নেতা, ও বিভিন্ন আর্থিক প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে অনুষ্ঠিত এ মতবিনিময় সভা করেছেন কেরানীগঞ্জ উপজেলা পুলিশ প্রশাসন। এতে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা জেলার পুলিশ সুপার শাহ মিজান শাফিউর রহমান, বিপিএম, পিপিএম।

দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানার ওসি মোহাম্মদ শাহজামান বলেন,  কোরবানি উপলক্ষে ২ থানার পরিকল্পনা রয়েছে। দক্ষিণ কেরানীগঞ্জে ৪/৫টি গরুর হাট বসে। প্রতিবছরের ন্যায় এবারও আমরা নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করব। ঢাকা মাওয়া হাইওয়ে রাস্তা মেরামতের কারণে কিছু সমস্যা রয়েছে এখানে। ট্রাফিক পুলিশকে সঙ্গে নিয়ে আমরা এ বিষয়গুলা তদারকী করব। ব্যাংক-বীমাগুলোতে অনেক টাকা-পয়সা লেনদেন হয়। বড় লেনদেন হলে আমাদের অবগত করবেন, আমরা নিরাপত্তা প্রদান করব।

কেরানীগঞ্জ মডেল থানার ওসি শাকের মোহাম্মদ যুবায়ের বলেন, আগের ঈদগুলোর মতো এবার ও সমস্যা হবে না। কেরানীগঞ্জ মডেল এলাকায় ৫টি গরুর হাট বসে। তিনি ব্যাংক কর্মকর্তা ও জনগণের উদ্দেশে বলেন, ব্যাংকে বড় লেনদেন হলে পুলিশের সঙ্গে যোগাযোগ করবেন। একটা ঘটনা ঘটনার আগেই ব্যবস্থা নিলে দুর্ঘটনা হয় না। হাট ইজাদারদের প্রতি অনুরোধ রাস্তায় কোনোভাবেই গরু রাখবেন না, গরুর হাটে পর্যাপ্ত ভলান্টিয়ার রাখবেন। হাটে যেন গুজবের মাধ্যমে কোনো দুর্ঘটনা না ঘটে সেদিকে সবাই খেয়াল রাখবেন।

মতবিনিময় সভায় কোন্ডা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সাইদুজ্জামান ফারুক বলেন, আমার এলাকা একটু গ্রামের দিকে, প্রশাসনের কাছে আমার অনুরোধ গরুর হাটের কৃষকদের নিরাপত্তা দিবেন। ইজারাদাররা রাস্তাঘাট কম খোড়াখুড়ি করবেন।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আ. লীগ আহবায়ক শাহীন আহমেদ, তিনি বলেন, ঈদুল আজহা মুসলমানদের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ধর্মীয় উৎসব। বর্তমানে দেশে গুজব রটছে। বিএনপি জামাত গুজবের মূল হোতা। ইজারাদাররা নিজেদের মধ্য বিবাদ করবেন না। রাস্তার মধ্যে কোনো প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করবেন না।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে শাহ মিজান শাফিউর রহমান বলেন, প্রতিবছরই ঈদের আগে আমরা সবার সঙ্গে মতবিনিময় করে থাকি। যেন ঈদে কোনো ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা না ঘটে। ঈদকে সামনে রেখে সবারই সর্বোচ্চ সতর্ক হওয়া উচিত। পুলিশের কাজই জনগণকে সেবা দেওয়া।  

RSS
Follow by Email
Facebook
Twitter
X